UGC’র নির্দেশের পর বদল হল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নেবার নিয়মাবলি, জেনে নিন এক ক্লিকে

UGC’র নির্দেশের পর বদল হল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নেবার নিয়মাবলি, জেনে নিন এক ক্লিকে

সোমবার অর্থাৎ আজ কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৫২টি কলেজের সঙ্গে বৈঠক করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। জানানো হয়েছে ২ ঘণ্টার মধ্যেই শেষ করতে হবে পরীক্ষা। তবে প্রশ্নপত্র ডাউনলোড এবং উত্তরপত্র আপলোডের জন্য বাড়তি আধঘণ্টা সময় দেওয়া হবে।

স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের চূড়ান্ত বর্ষের পরীক্ষা নিতেই হবে, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের এই নির্দেশে সুপ্রিম কোর্টের সিলমোহর পড়তেই রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে পরীক্ষা প্রস্তুতির তোড়জোড় শুরু হয়। কারণ, করোনা এবং আমফান পরিস্থিতির জেরে প্রথমে ঠিক ছিল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে চূড়ান্ত বর্ষের পরীক্ষা হবে না।

আগের সেমেস্টারে পাওয়া নম্বর, ইন্টারনাল অ্যাসেসমেন্টের ভিত্তিতে চূড়ান্ত বর্ষের ফলাফল প্রকাশ করা হবে কিন্তু UGC জানায়, পরীক্ষা ছাড়া স্নাতকের সার্টিফিকেট দেওয়া যায় না। তাই পরীক্ষা নিতেই হবে।

সেইমতো শিক্ষাদপ্তরের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে নিজেদের পরীক্ষাসূচি স্থির করে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো। সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানই অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার পক্ষে মত দেয়।

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফে জানানো হয়, পরীক্ষার্থীদের প্রশ্ন পাঠিয়ে দেওয়া হবে ই-মেল বা হোয়াটসঅ্যাপে। তাঁরা উত্তর লিখে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে অনলাইনে তা জমা দেবে। যাদের এই সুযোগ নেই, তারা সংশ্লিষ্ট কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে গিয়ে উত্তরপত্র জনা দিতে হবে।

১ থেকে ১৮ অক্টোবরের মধ্যে পরীক্ষা হবে। যাবতীয় পরিকল্পনা স্থির করে UGC-তে তা পাঠানো হয় রাজ্যের তরফে। পরীক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে সামগ্রিকভাবে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন সবুজ সংকেত দেয়। তবে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়কে আলাদাভাবে জানিয়ে দেওয়া হয় ২৪ ঘণ্টা উত্তর লেখার জন্য সময় দেওয়া যাবে না। বড়জোর তিনঘণ্টা সময় বরাদ্দ থাকবে পরীক্ষার জন্য।

প্রয়োজনে লগ-ইন করে, প্রশ্নপত্র দেখার জন্য কিছুটা বাড়তি সময় দেওয়া যেতে পারে। UGC’র এই নির্দেশিকার পর নতুন করে পরীক্ষা সূচি স্থির কর সোমবার বৈঠক ডাকা হয়। ওই বৈঠকেই স্থির হয় মোট ২ ঘণ্টার মধ্যেই শেষ করতে হবে পরীক্ষা। প্রশ্নপত্র ডাউনলোড এবং উত্তরপত্র আপলোডের জন্য সময় পাওয়া যাবে আরও ৩০ মিনিট।