ট্রাম্পের সাহায্য বন্ধে দুর্বল হবে WHO, প্রতিক্রিয়া চিনের

ট্রাম্পের সাহায্য বন্ধে দুর্বল হবে WHO, প্রতিক্রিয়া চিনের

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থায় WHO কে অর্থ সাহায্য বন্ধ করে দিয়েছে আমেরিকা। সেজন্য তারা গভীরভাবে চিন্তিত বলে জানাল চিন।

মঙ্গলবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অভিযোগ করেন, চিনে প্রথম করোনার হদিশ পাওয়ার পর তার সংক্রমণ রুখতে ব্যর্থ হয়েছে হু। সেজন্য মার্কিন অর্থ সাহায্য বন্ধ করা হচ্ছে। গত সপ্তাহেই অবশ্য এরকম ইঙ্গিত দিয়েছিলেন ট্রাম্প। মঙ্গলবার তা সরকারিভাবে ঘোষণা করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘নিজের প্রাথমিক দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হয়েছে হু। সেজন্য ওদের জবাবদিহি করতে হবে।’ তিনি জানান, ভবিষ্যতে আবারও আর্থিক সাহায্যে করা হবে, হু’র পদক্ষেপ খতিয়ে দেখে সেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

বিষয়টি নিয়ে হু-র তরফে কোনও মন্তব্য করা হয়নি। যদিও ট্রাম্পের নিশানায় থাকা বেজিং বুধবার জানায়, এ বিষয়ে তারা গভীরভাবে চিন্তিত। একটি সাংবাদিক ব্রিফিংয়ে চিনের বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র ঝাও লিজান বলেন, ‘আমেরিকায় হু’র আর্থিক সাহায্য স্থগিত করার বিষয়ে আমরা গভীরভাবে চিন্তিত। বর্তমানে বিশ্বে মহামারীর অবস্থা অত্যন্ত ভয়াবহ। এটা সংকটজনক পরিস্থিতি। মার্কিন সিদ্ধান্তের ফলে হু’র ক্ষমতা হ্রাস পাবে ও মহামারীর বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক সহযোগিতাকে লঘু করে দেবে।’