কীভাবে হবে পুজো তাই নিয়ে আজ ক্লাবের সাথে বৈঠক করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

কীভাবে হবে পুজো তাই নিয়ে আজ ক্লাবের সাথে বৈঠক করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

করোনা পরিস্থিতিতে কীভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে পুজো করা হবে তা নিয়ে জুলাই মাসে ১৭টি পয়েন্টকে সামনে রেখে একটি প্রস্তাব তৈরি করেছিল কলকাতার ফোরাম ফর দুর্গোৎসব। সেই প্রস্তাবগুলি নিয়েই আজ, বৃহস্পতিবার নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে রাজ্য প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক করতে চলেছেন পুজো কমিটির কর্তারা।

চারশো টির বেশী ক্লাব আছে এই ফোরামে। শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য অধিকাংশ পুজো কমিটি থেকে এক-দু’জন করে নেতাজি ইন্ডোরে যেতে বলা হয়েছে।

রাজ্য প্রশাসনের তরফে ইতিমধ্যেই তিন দিক খোলা মণ্ডপ তৈরি করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। আবার ফোরামের গাইডলাইন সম্পর্কেও অবহিত রাজ্য। ফোরামের সম্পাদক শাশ্বত বসু বলেন, ‘বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কী বলেন, তা সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। আমাদের প্রস্তাব নিয়ে প্রশাসন কী ভাবছে এবং প্রশাসনের তরফে কী নির্দেশিকা দেওয়া হচ্ছে, তা দেখে আমরা আমাদের কথা বলব।’

সুরক্ষাবিধি ও শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য শুধু সন্ধ্যার পর থেকে ঠাকুর দেখতে না-বেরিয়ে সারা দিন ধরে দর্শনার্থীদের মণ্ডপে যাওয়ার পক্ষে সওয়াল করেছে ফোরাম। তা হলে সন্ধ্যার পর থিকথিকে ভিড় এড়ানো যাবে।

মণ্ডপের আলোকসজ্জা দেখার জন্যই আমজনতা সন্ধ্যার পর প্রতিমা দর্শন পছন্দ করেন। তাই এই বছর আলোক সজ্জা ন্যূনতম রেখে সন্ধ্যার ভিড় কমানোর পক্ষপাতী ফোরাম।