ইদ উপলক্ষে লকডাউন শিথিল না করে ৩০ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে দিন, মমতাকে চিঠি ইমামদের

ইদ উপলক্ষে লকডাউন শিথিল না করে ৩০ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে দিন, মমতাকে চিঠি ইমামদের

লকডাউনের মধ্যেই বিশ্বজুড়ে চলছে রোজা পালন। ব্যতিক্রম নয় পশ্চিমবঙ্গ। কিন্তু ইদে কী হবে তা নিয়ে প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে অনেকের মধ্যেই। ইদে কি লকডাউন শিথিল হবে? না কি ঘরবন্দি হয়েই কাটবে এবারের খুশির ইদ?
eid

এসব জল্পনার মধ্যেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি দিল ইমামদের সংগঠন। চিঠিতে মুখ্যমন্ত্রীকে তাঁদের অনুরোধ, দয়া করে ইদে লকডাউন শিথিল করবেন না।

আনুমানিক আগামী ২৫ মে ইদ। মুসলিম সম্প্রদায়ের সব থেকে বড় এই পরবে এবার ঝুলছে লকডাউনের কাঁটা। ইতিমধ্যে ইদের কেনাকাটা লাটে উঠেছে।

তাতে সাধারণ মানুষের সঙ্গে মন খারাপ ব্যবসায়ীদেরও। তবে করোনা সংক্রমণ যে হারে ছড়াচ্ছে তার মধ্যে লকডাউনের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করছেন না কেউ।

বিশেষ করে রাজ্যের একাধিক মুসলিম অধ্যুষিত এলাকায় সংক্রমণের চেহারা ভয়াল। এই পরিস্থিতিতে লকডাউন শিথিল হলে যে কী পরিণতি হতে পারে তা বিলক্ষণ জানা আছে ইমামদের।

তাই মুখ্যমন্ত্রীকে ইদ উপলক্ষে লকডাউন না তোলার বিনীত অনুরোধ করেছেন তাঁরা।

সঙ্গে ইমামদের তরফে জানানো হয়েছে, কেন্দ্রীয় সরকার ৩০ মে-র আগে লকডাউন তুলে নিলেও রাজ্য সরকার যেন তা না করে।

চিঠির একটি অংশে লেখা হয়েছে, ‘পশ্চিমবঙ্গের স্বার্থে অন্তত ৩০ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে দিন।

আগে মানুষ বাঁচুক, তার পর উৎসব। আমরা এত ত্যাগ করেছি, আরও করব।’