‘‌এক দেশ, এক রেশন কার্ড’‌, রেশন কার্ডের ব্যবস্থায় আসছে আমূল পরিবর্তন !

‘‌এক দেশ, এক রেশন কার্ড’‌, রেশন কার্ডের ব্যবস্থায় আসছে আমূল পরিবর্তন !

একগুচ্ছ ঘোষণার মধ্যেও রেশন কার্ডের ব্যবস্থা নিয়ে নতুন পরিকল্পনার কথা ঘোষণা করলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন।
one country one Ration Card
তিনি জানালেন, দেশের যে কোনও প্রান্ত থেকে যাতে পরিযায়ী শ্রমিক বা দরিদ্র মানুষের প্রয়োজনীয় রেশন পান, তার জন্য ব্যবস্থা করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

এটিকে বলা হচ্ছে, ‘‌এক দেশ, এক রেশন কার্ড’‌। এর ফলে দেশের নাগরিকরা যে প্রান্তেই থাকুন না কেন, স্থানীয় রেশন দোকানে গিয়ে তিনি রেশন সংগ্রহ করতে পারবেন।

উল্লেখ্য, রাহুল গান্ধীর সঙ্গে আলোচনায় ঠিক এই প্রস্তাবই দিয়েছিলেন নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। কিছুটা সেই পথেই হাঁটছে কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রক।

নির্মলা সীতারমন জানিয়েছেন, রেশন ব্যবস্থায় এই এক দেশ, এক রেশন কার্ডের আওতায় আগামী আগস্ট মাসের মধ্যে দেশের একটা বড় অংশে গ্রাহককে নিয়ে আসতে পারবে কেন্দ্রীয় সরকার।

তারপর আগামী মার্চ, ২০২১ সালের মধ্যে দেশের রেশন ব্যবস্থার সম্পূর্ণ বদল করে ফেলা হবে বলেই জানিয়েছেন তিনি। এর ফলে দেশের ৬৭ কোটি মানুষ উপকৃত হবেন, যাঁরা ২৩ রাজ্যের বাসিন্দা। পাবলিক ডিস্ট্রিবিউশন সিস্টেমের ৮৩ শতাংশ এর আওতায় এসে পড়বে।

এছাড়াও এদিন অর্থমন্ত্রী বলেন, মূল্যে খাদ্য শস্য দেওয়া হবে আগামী দু’মাসে। খাদ্য সুরক্ষা আইন ও রেশন কার্ড ছাড়াও পরিযায়ী শ্রমিকরা বিনামূল্যে ৫ কেজি খাদ্যশস্য (চাল/গম) পাবেন ৮ কোটি শ্রমিক।

এই খাদ্যশস্যের সরবরাহের দায়িত্ব দেওয়া হবে রাজ্যকে।