এ কেমন বিচার পাকিস্থানে ? হিন্দু বলে রেশন দেবে না !

এ কেমন বিচার পাকিস্থানে ? হিন্দু বলে রেশন দেবে না !

করোনা সংকটের জেরে ভারতের মতো পাকিস্তানেও জনজীবন স্তব্ধ৷সাধারণ মানুষের জন্য সরকারের পক্ষ থেকে যে খাদ্য সামগ্রী দেওয়া হচ্ছে তা হিন্দু বা খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের মানুষকে তা দেওয়া হচ্ছে না৷
করাচির বাসিন্দা এক হিন্দু ব্যক্তি আক্ষেপের সুরে বলেন, ‘প্রশাসন আমাদের সঙ্গে কোনও রকম সহযোগিতা করছেন না৷ লকডাউনের মধ্যে যে রেশন দেওয়া হচ্ছে তা আমরা হিন্দু বলে পাচ্ছি না৷’


করাচির রেহরি ঘোট এলাকায় সাধারণ মানুষকে চাল, ডালের মতো অত্যাবশ্যকীয় পণ্য বন্টন করা হচ্ছে৷ সেখানেই ভিড় করেছিলেন বহু হিন্দু এবং খ্রিস্টান৷ অভিযোগ, তাঁদের মুখের উপরে বলে দেওয়া হয়েছে যে হিন্দু হওয়ার কারণেই তাঁরা রেশন পাবেন না৷হিন্দু সম্প্রদায়ের আর এক ব্যক্তিও বলেন, ‘আমাদের প্রতিবেশীরা সবাই রেশন পাচ্ছেন৷ আমার ছেলে রিকশা চালায়৷ এখন তাঁর কোনও কাজ নেই৷ আমাদের হাতে টাকাও নেই, কোনও খাবারও নেই৷ রেশন নিতে এলে আমাদের বলা হয়েছিল যে আলাদা ট্রাকে করে আমাদের জন্য রেশন পাঠানোর ব্যবস্থা করা হবে৷ কিন্তু বাস্তবে কিছুই হয়নি৷’
এইদিকে পাকিস্তানের আরও এক হিন্দু নাগরিক অভিযোগ করেছেন, এক সপ্তাহ ধরে তাঁদের বাড়িতে কোনও চাল- ডাল নেই৷ অথচ রাস্তায় বেরোলেই তাঁদের পুলিশ তাড়া করছে৷ করোনার বিপদের মধ্যে পাক প্রশাসনের অমানবিক আচরণ সেদেশের হিন্দুদের সংকট আরও বাড়িয়ে দিয়েছে৷

Leave a Reply