পুজো নিয়ে গতকাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কি আলোচনা করলেন ? কি ঘোষণা হল সিভিকদের জন্যে জেনে নিন এক নজরে

পুজো নিয়ে গতকাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কি আলোচনা করলেন ? কি ঘোষণা হল সিভিকদের জন্যে জেনে নিন এক নজরে

মহামারী করোনা আবহে পুজো করতে গিয়ে আর্থিক অনটনের মুখে পড়ছে পূজা কমিটিগুলি তাই দুর্গাপুজো নিয়ে বড় ঘোষণা বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাই তাঁদের পাশে দাঁড়িয়ে বড় অঙ্কের আর্থিক সাহায্যের কথা ঘোষণা করলেন মমতা। একইসঙ্গে পুজো কমিটি গুলিকে একাধিক কর ছাড়ও দেওয়া হল।

বৃহস্পতিবার নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে পুজো কমিটিগুলির সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় । সেখানে থেকে একাধিক ঘোষণা করেন ।

✓ সব রেজিস্টার্ড পুজো কমিটিগুলিকে এবার ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান দেবে রাজ্য সরকার।

✓রেজিস্টার্ড পুজোগুলির জন্য বেশকিছু করও মকুব করা হয়েছে। তারমধ্যে রয়েছে পুরকর, দমকলের ফি-ও।

✓ বিদ্যুতের ক্ষেত্রে ৫০ শতাংশ কর মকুব করা হয়েছে। সিইএসসি ও রাজ্য বিদ্যুৎ পর্ষদের ক্ষেত্রে এই ছাড় দেওয়া হচ্ছে।

✓ সিভিক ভলান্টিয়ার ও আশাকর্মীদের ১০০০ টাকা করে বেতন বৃদ্ধির কথা ঘোষণা করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ।এর ফলে তারা এবার থেকে ৫,৫০০ টাকা করে মাসিক বেতন পাবেন। এছাড়া সিভিক ভলান্টিয়ারদের বেতনও ১,০০০ টাকা করে বাড়ানোর ঘোষণা করেছেন মমতা। যার ফলে তাদের বেতন বেড়ে হচ্ছে ৯,০০০ টাকা।

✓ অবসরগ্রহণের পর অঙ্গনওয়াড়ির কর্মীরা ৩ লক্ষ টাকা পাবেন।

✓ ৮১ হাজার হকারকে পুজোর মাসে ২ হাজার টাকা করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার ।ইতি মধ্যে ৮৫,০০০ হকারের তালিকা রাজ্যের কাছে জমা পড়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি ।

এদিন মমতা জানান, কলকাতা ও জেলার পুজোয় পুজোর মণ্ডপ খোলামেলা করতে হবে। প্রতিমার মাথার ওপরে আচ্ছাদন থাকলেও চারদিক যেন খোলামেলা থাকে। এছাড়া পুজোকমিটি গুলিকে একদিক দিয়ে প্রবেশ ও অন্য দিক দিয়ে বেরনোর ব্যবস্থা করতে বলেন তিনি। এছাড়া ব্যারিকেড করে ব্যারিকেডের ভিতরে গোল করে দাগ কেটে দিতে বলেছেন দর্শকদের সুবিধার জন্য।

পুজোর অঞ্জলি ও সিঁদুরখেলা ছোট ছোট দলে ভাগ হয়ে করতে পরামর্শ দিয়েছেন মমতা। অঞ্জলি দেওয়ার সময় মাইক্রোফোনে পুরোহিতকে মন্ত্রোচ্চারণের পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। মুখে মাস্ক পরে ঠাকুর দেখা যাবে বলে জানান তিনি। একাদশী পর্যন্ত ঠাকুর দেখা যাবে সারা রাত ।

দুর্গাপুজোর দিনগুলিতে সারা রাত নাইট কার্ফু জারি থাকবে বলে সম্প্রতি হোয়াটসঅ্যাপে একটি ভুয়ো মেসেজ ভাইরাল হয়েছে সেই মেসেজ ছড়ানোর অভিযোগে বেশ কয়েকজনকে ইতিমধ্যে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এদিন মমতার ঘোষণায় স্পষ্ট হল তেমন কোমও পরিকল্পনা নেই রাজ্য সরকারের।